বিভিন্ন স্থানে বৌদ্ধ ধর্মালম্বীদের উপর হামলার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ ও দায়ীদের শাস্তি দাবি-বাসদ

Haturi-kastey edited copyবাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির এক সভা আজ ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৭ সকাল ১১টায় কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়। দলের সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় উপস্থিত ছিলেন ও বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড বজলুর রশীদ ফিরোজ, জাহেদুল হক মিলু ও রাজেকুজ্জামান রতন।
সভার এক প্রস্তাবে দেশের বিভিন্ন স্থানে বৌদ্ধ সম্প্রদায় ও পাহাড়ী জনগোষ্ঠীর উপর সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠীকর্তৃক সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও তীব্র নিন্দা প্রকাশ করা হয়। সভার প্রস্তাবে বলা হয়, মায়ানমারের রাখাইনে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর উপর সে দেশের সেনাবাহিনীর বর্বর নৃশংস হামলা, নির্যাতন, ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনার নিন্দা জানিয়ে বাংলাদেশের সর্বস্তরের জনগণ প্রতিবাদে সোচ্চার হয়েছে। কিন্তু মায়ানমারের ঘটনাকে কাজে লাগিয়ে ধর্মান্ধ সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠী ও স্বার্থান্বেষী মহল জনগণের মুসলিম ধর্মীয় আবেগকে উস্কে দিয়ে বৌদ্ধ ও পাহাড়ী বিভিন্ন জাতিগোষ্ঠীর জনগণের বিরুদ্ধে বক্তব্য বিবৃতি দিচ্ছে এবং দেশ থেকে বিতাড়িত করার হুমকী দিয়ে আসছে। তারই প্রতিফলন বিভিন্ন স্থানে হামলার ঘটনা। প্রস্তাবে সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠীর এহেন কর্মকা-ের বিরুদ্ধে সরকারের পক্ষ থেকে কার্যকর ব্যবস্থা না নেয়ায় নিন্দা জানানো হয়।
এই হামলার ঘটনার সাথে জড়িত দায়ীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করা হয় এবং বৌদ্ধধর্মালম্বী ও পাহাড়ী বিভিন্ন জাতিগোষ্ঠী, সম্প্রদায়ের জনগণের নিরাপত্তা দেয়ার জন্য জোর দাবি জানানো হয়। সভার প্রস্তাবে বলা হয়, বাংলাদেশের জনগণের দীর্ঘ দিনের ইতিহাস হলো সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি। এটা বিনষ্ট করার হীন প্রচেষ্টা প্রতিহত করার জন্য নেতৃবৃন্দ সকল দেশপ্রেমিক জনগণের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানান।